নিহত নাসিক প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম সহ নিহত সকলের রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া মাহফিল

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুনের ঘটনার সপ্তম বার্ষিকীতে নিহত নাসিক প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম সহ নিহত সকলের রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া মাহফিল ও খাবার বিতরণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ এপ্রিল) বিকালে সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি আব্দুল আলী এলাকায় নিহত নজরুল ইসলামের স্ত্রী সাবেক কাউন্সিলর সেলিনা ইসলাম বিউটির নিজ বাস ভবনে এ দোয়া মাহফিলটি অনুষ্ঠিত হয়। এসময় সাবেক প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম সহ সাত খুনে নিহতদের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনায় দোয়া করা হয়। দোয়া ও মোনাজাত পরিচালনা করেন, মাওলানা সিহাব উদ্দিন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের যুগ্ন আহ্বায়ক ও নিহত নজরুল ইসলামের শ্যালক হাজী শফিকুল ইসলাম শফিক, নিহত নজরুল ইসলামের ছোট ছেলে জাহিদুল ইসলাম ফাহিম, শ্যালক সাইদুল ইসলাম, নিহত তাজুলের ছোটভাই রাজু আহমেদ, স্থানীয় ২নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের কর্মী আবু তালেম, শহীদ, ইমান আলী, আব্দুল্লাহ আল মামুন, শরীফ ও জহিরুল হক সহ এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ প্রমূখ।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জের একটি আদালতে হাজিরা শেষে প্রাইভেটকারযোগে ফিরছিলেন নাসিকের প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, সহযোগী তাজুল ইসলাম, লিটন ও গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম। একইসময়ে আদালতের কার্যক্রম শেষে অপর একটি প্রাইভেটকারে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন নারায়ণগঞ্জের সিনিয়র আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহীম। পথিমধ্যে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোডের ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামের সামনে থেকে সাদা পোশাক পরিহিত র‌্যাব সদস্যরা তাদের সাত জনকেই অপহরণ করেন। তখন সাত জনকে অপহরণের ঘটনায় উত্তাল হয়ে উঠে নারায়ণগঞ্জ। দফায় দফায় চলতে থাকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক, ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ও ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোড অবরোধ। অপহরণের ঘটনার একদিন পর কাউন্সিলর নজরুলের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় ছয়জনকে আসামি করে একটি মামলা করেন। এ ছাড়া আইনজীবী চন্দন সরকারের জামাতা বিজয় কুমার পালও একই থানায় পৃথক আরেকটি মামলা করেন। শুরুতেই নজরুলের শ্বশুর শহীদ চেয়ারম্যান গনমাধ্যমের মাধ্যমে দাবী করে আসছিল যে নুর হোসেনই র‌্যাবকে দিয়ে এই অপহরণের ঘটনাটি ঘটিয়েছে। ঘটনার তিন দিন পর ৩০ এপ্রিল শীতলক্ষ্যা নদীর চর ধলেশ্বরী এলাকা থেকে ছয়জনের ও ১ মে একজনের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন

Back to top button